ডোমারে ঘটকে চড়ে মর্ত ছাড়ছেন দেবী দূর্গা।

ঘটকে চড়ে মর্ত ছাড়ছেন দেবী দূর্গা, ফিরছেন কৈলাশে স্বামীর বাড়ীতে। শাস্ত্রমতে শাপলা,শালুক আর বলিদনের মধ্যদিয়ে দেবীর পুজা সম্পন্ন হয়েছে।

দেবীকে বিদায় জানাতে মন্ডপে মন্ডপে ভক্তদের ঢল, বিজয়া দশমির মধ্য দিয়ে বিসর্জন হচ্ছে দেবী দূর্গার। মঙ্গলবার সকালে সিদঁুর খেলায় মেতেছে সকল বয়সের নারীরা, ঢাকের তাল আর উলুর ধ্বনিতে মুখরিত পূজা মন্ডপ। হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধমর্ীয় উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজার নবমিতে মন্ডপ পরিদর্শনে নীলফামারী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়নাল আবেদীন তিনি উপজেলার বিভিন্ন পূজা মন্ডপ পরিদর্শন করেন এবং আর্থিক সহোযগীতা প্রদান করেন বলে জানাগেছে। পুজাকে ঘিরে ব্যাস্ত সময় পার করেছেন ডোমার উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি অধ্যাপক খায়রুল আলম বাবুল। তিনি তার নেতা কর্মিদের নিয়ে উপজেলার বিভিন্ন পুজা মন্ডপ পরিদর্শন করেন এবং মন্ডপে আসা ভক্তদের সাথে কুশল বিনিময় করে।

এ সময় পূজা উদ্যাপন পরিষদের সাবেক সভাপতি রাম নিবাস আগরওয়ালা, আহবায়ক রাম কৃষ্ণ রায়, কেন্দ্রীয় হরি সভা মন্দিরের সভাপতি উজ্জল কাঞ্জিলাল, সাধারণ সম্পাদক অশোক আগরওয়ালা, নিউ মিলন সংঘের সভাপতি সিতানাথ কুন্ডু, সাধারণ সম্পাদক নিখিল সাহা, অরুপ কুন্ডু, কমল সাহা, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক গনেশ কুমার আগরওয়ালা প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। তুলসি আরতি, শুভ অধিবাস, নগর পরিক্রমা ও ভাগবত গীতা পাঠের মধ্যদিয়ে দেবী বিসর্জন করতে সব প্রস্তুতি শেষ হয়েছে।