শিক্ষা অধিদপ্তরের নির্দেশনাকে বৃদ্ধাগুলি দেখিয়ে স্বপদে বহাল উত্তর বাংলা কলেজের অধ্যক্ষ!

নূর আলমগীর অনুঃ মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের নির্দেশনাকে বৃদ্ধাগুলি দেখিয়ে স্বপথে বহাল উত্তরবাংলা কলেজের অধ্যক্ষ এ এস এম মনোয়ারুল ইসলাম। অবৈধ ভাবে তুলছেন নিয়মিত বেতন ভাতা।

বয়স ৬০বছর পূর্ণ হওয়ায় লালমনিরহাট জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার উত্তরবাংলা কলেজের অধ্যক্ষ এ এস এম মনোয়ারুল ইসলাকে দায়িত্ব হস্তান্তরের নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর।অধিদপ্তর থেকে এই নির্দেশ দিয়ে মোঃএনামূল হক হাওলাদার উপ-পরিচালক (কলেজ-২)স্বাক্ষরিত পত্রে জনবল কাঠামো ২০১৮এর ১৩ ধারা অনুযায়ী জোষ্ঠ্য শিক্ষককে দায়িত্ব হস্তান্তরের নির্দেশ দিয়ে একটি চিঠি পাঠানো হয়েছে। গত ১৭ই জুন ২০১৯ মোতাবেক প্রেরিত পত্রে জনবল কাঠামো ২০১৮/১৩ধারা অনুযায়ী জোষ্ঠ্য শিক্ষকের নিকট দায়িত্ব হস্তান্তরের জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে।

জানা গেছে,উত্তর বাংলা কলেজের অধ্যক্ষ এ এস এম মনোয়ারুল ইসলাম এর ১০/০৪/১৯৫৯ জন্ম মতে গত ১০ই এপ্রিল ২০১৯ তাহার ৬০বছর পূর্ণ হয়েছে।কিন্তু এসব নির্দেশনা তোয়াক্কা না করে বহলতবিরতে অধ্যক্ষের দায়িত্ব পালন করে আসছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়ে শিক্ষা অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা জানান,গত ১২জুন শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের জারিকরা এম পিও নীতিমালা ও জনবল কাঠামো ২০১৮ এর ১১.৬অনুচ্ছেদে বলা হয়,বয়স ৬০ বছর পূর্ণ হলে কোন প্রতিষ্ঠান প্রধান বা সহকারী প্রধান বা শিক্ষক কর্মচারীকে কোন অবস্থাতেই পুনঃনিয়োগ বা চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেয়া যাবেনা সে অনুযায়ী অধ্যক্ষ পদে দায়িত্ব পালনের সুযোগ নেই। অধ্যক্ষের অনুপস্থিতিতে উপাধ্যক্ষ বা জোষ্ঠ্য শিক্ষক দায়িত্ব পালন করবেন। এ পরিপেক্ষিতে ১৭ই জুন এ এস এম মনোয়ারুল ইসলাম কে অধ্যক্ষ পদে দায়িত্ব হস্তান্তরের নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর।
এ বিষয়ে উত্তর বাংলা কলেজের দায়িত্ব পালনরত বর্তমান অধ্যক্ষ এ এস এম মনোয়ারুল ইসলাম কে প্রশ্ন করা হলে,তিনি জানান এ বিষয়ে বিস্তারির জানতে হলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নিকট জানবেন।

এ বিষয়ে উত্তর বাংলা কলেজের উপাধ্যক্ষ মাহফুজুল ইসলাম (পাভেল) বলেন,মাধ্যমিক উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিপত্রে সুস্পষ্ট নীতিমালায় দায়িত্ব হস্তান্তরের কথা উল্লেখ থাকলেও তিনি দায়িত্ব হস্তান্তর করেননি। তিনি দায়িত্ব হস্তান্তর না করলে আমার করার কিছু নাই।

উত্তর বাংলা কলেজের অধ্যক্ষের দায়িত্ব হস্তান্তরের বিষয়ে ফারহানা আক্তার সহকারী পরিচালক(কলেজ-৩) স্মাক্ষরিত আরো একটি স্বারক যাহার নং ৩৭.০২.০০০০.১০৫.৯৯.০১০.২০১৯/২৯১৬/৪ মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ওয়েব সাইট www.dshc.gov.bd তে বলা হয়েছে,আগামী ৩ কার্যদিবসের মধ্যেই অধ্যক্ষকে দায়িত্ব হস্তান্তরের জন্য নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

উক্ত পত্রের অনুলিপি সভাপতি,গভর্নিং বডি,পরিচালক মাধ্যমিক উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা রংপুর অঞ্চল,ব্যবস্থাপক সোনালী ব্যাংক লিমিটেড কালীগঞ্জ শাখা কে অনুলিপি প্রদান করা হয়েছে।এবং এ এস এম মনোয়ারুল ইসলামের স্্বা ক্ষরে কোন বিল বেতন পাশ না করার জন্য বলা হয়েছে।

এ বিষয়ে সোনালী ব্যাংক লিমিটেড , কালীগঞ্জ শাখার ব্যবস্থাপক এরশাদুল ইসলাম জানান, তিনি আমাদের শাখায় বেতন ভাতা উত্তোলন করেন না। তিনি ব্যাংকের কাকিনা শাখা হতে বেতন উত্তোলন করেন। তাই বিষয়টি উক্ত কাকিনা শাখা দেখবেন। আর এ বিষয়ে অফিসিয়াল কোন পত্র এখনও আমরা পাইনি।