মোমিন বিশ্বাসের পথচলা

তরুণ প্রজন্মের গানপ্রিয় শ্রোতাদের কাছে ভালো লাগার একজন শিল্পী মোমিন বিশ্বাস! ইতিমধ্যেই তিনি তাঁর সুরেলা দরাজ কন্ঠ দিয়ে অসংখ্য মানুষের মন জয় করে নিয়েছেন! রাজশাহীর ছেলে মোমিন বিশ্বাস কিংবদন্তী কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোরের হাত ধরে সঙ্গীত জগতে আসেন! দীর্ঘ ১৪ বছর রাজশাহীতে উস্তাদ কাজী মন্টু’র কাছে তালিম নেন! এরপর কিংবদন্তী সুরকার ও সঙ্গীত পরিচালক আলাউদ্দিন আলী’র সান্নিধ্যে আসেন! রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে নাট্যকলা ও সঙ্গীত বিভাগে অধ্যয়নকালেই ২০০৮ সালে বন্ধন চলচ্চিত্রে প্লেব্যাকের মাধ্যমে সঙ্গীতশিল্পী হিসেবে যাত্রা শুরু করেন! এ পর্যন্ত প্রায় ৬০-৬৫টি চলচ্চিত্রের গানে তিনি কন্ঠ দিয়েছেন! এ ব্যাপারে তিনি বলেন-“স্কুলে যখন শিক্ষকরা জিজ্ঞেস করতেন বড় হয়ে কি হতে চাও?তখন উত্তর দিতাম সিনেমায় গান গাইতে চাই! শুনে সবাই হাসাহাসি করত! চলচ্চিত্রে গান গাওয়া যেকোন শিল্পীর জন্য অনেক বড় স্বপ্নের বিষয়! বর্তমানে নতুন চলচ্চিত্র নির্মাণ অনেক কমে গেছে তাই চলচ্চিত্রের গানও কমে গেছে” ।

চলচ্চিত্র ছাড়াও প্রায় সব মাধ্যমেই তিনি গান গেয়ে চলেছেন! এ পর্যন্ত প্রায় ৩০টির বেশি মিক্সড এলবামে গান করেছেন,টেলিভিশন এবং মঞ্চেও গান গাইছেন নিয়মিত! অনেক বছর ধরে তিনি শিল্পী এন্ড্রু কিশোরের কাছে তালিম নিচ্ছেন! বর্তমানে মুক্তির মিছিলে থাকা বেশ কিছু গানের কাজ তিনি শেষ করেছেন! এর মধ্যে রবিউল আউয়ালের কথায় এস আলী সোহেলের সুরে আলিফ লায়লার সাথে একটি দ্বৈত গান,গীতিকার মিলন খানের কথায় আল আমিন খানের সুরে ৩টি এবং নিজের সুরে একটি গানের কাজ শেষ করেছেন! রিপন সরকারের সুরে একটি দ্বৈত গান ও একটি একক গান, ফিলিপ গোমেজের লেখা ও সুরে দুটি একক গানের কাজ শেষ করেছেন! এছাড়াও কিংবদন্তী সুরকার আলাউদ্দিন আলী’র সুরে ফারজানা আলী মিমি’র সাথে একটি দ্বৈত গানের গানের কাজ সহ বেশ কিছু গান নিয়ে কাজ করছেন!