সাতক্ষীরার দেবহাটায় অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধুকে মারপিটের অভিযোগ

সাতক্ষীরার দেবহাটায় আসমা খাতুন (২৩) নামের এক গৃহবধুকে মারপিটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। মারপিটে আহত গৃহবধু আসমা খাতুন বর্তমানে সখিপুরস্থ দেবহাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তিনি উপজেলার চাঁদপুর গ্রামের শেখ খায়রুল ইসলামের স্ত্রী।

মঙ্গলবার বিকাল ৩টার দিকে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তাকে মারপিট করা হয় বলে অভিযোগ আহতের পরিবারের। আসমা খাতুনের স্বামী খায়রুল ইসলাম জানান, দীর্ঘদিন ধরে স্ত্রী আসমাকে ডিভোর্স দেয়ার জন্য তার বড় ভাই রিয়াজুল ইসলাম ও ভাবী শাহানারা খাতুন খায়রুলকে চাপ প্রয়োগ করে আসছে। কিন্তু খায়রুল তার স্ত্রী আসমাকে ডিভোর্স দিতে অস্বীকৃতি জানালে বিভিন্ন সময়ে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ভাই রিয়াজুল ও ভাবী শাহানারা তার স্ত্রী আসমাকে মারপিক করতে থাকে। এর আগেও অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় তারা আসমাকে মারপিট করায় তার গর্ভের সন্তান মারা যায়।

মঙ্গলবার খায়রুল বাড়ীতে না থাকার সুযোগে ভাই রিয়াজুল, ভাবী শাহানারা ও তাদের মেয়ে রিপা মিলে আবারো তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তার অন্তসত্ত্বা স্ত্রী আসমাকে বেধড়ক মারপিট করে। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

এঘটনায় খায়রুল বাদী হয়ে দেবহাটা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন বলে জানা গেছে।