তুমি আছ হৃদয়ে

 
তোমার কন্ঠের দৃঢ়তা-
আমার মাঝে প্রেরণা জোগায়
তুমি বাঙ্গালি জাতির প্রেরণা।
তোমার দৃপ্ত পদচারণা,
দৃঢ় মনোবল,হৃদয়ের উষ্ণতা,
আমাকে ঘিরে আছে।
তোমার ভাষণ শুনলে মনে হয়-
কে বলে তুমি নেই?
তুমি আছ ; সবুজ পাতার মাঝে।
তুমি আছ ; সূর্যরশ্মির তেজে।
তুমি আছ ; আমার চারিপাশে।
যখন আমি মুক্তচিত্তে তাকিয়ে থাকি।
যখন আমি দৃঢ়তার সাথে পথ চলি।
যখন আমি আমার ভাষায় কথা বলি-
তখন আমি তোমায় দেখতে পাই।
শান্ত মায়াবী দুটি চোখ যেন কথা বলছে।
বলছে প্রতিটি মুক্ত মানুষের মাঝে-
খুজে পাবে আমার প্রতিচ্ছবি।
“১৫ আগস্ট “
আজও ভুলতে পারেনি বাঙ্গালী জাতি,
বাংলার প্রকৃতি।
সূর্যের মাঝে তেজ নেই;
প্রকৃতির মাঝে সজীবতা নেই,
সে যেন বেদনায় জর্জরিত ;
ঝরে পড়ছে তার বেদনার জলরাশি।
আজকের বৃষ্টি শুধু পুঞ্জিভূত মেঘের ঝরে পড়া নয়,
এ যেন কালের স্রোতে লুকিয়ে থাকা ইতিহাসে স্বাক্ষী হাজারো মানুষের কান্না।
ঘাতকেরা পারেনি তোমাকে মারতে।
পারেনি তোমাকে নিশ্চিহ্ন করতে
তোমার উজ্জীবনী শক্তি আছে লাখ প্রাণে।
জাতির পিতা তুমি ফিরে আস
ডাকদাও তোমার সন্তানদের
অভিমান করে থেকো না।
 
দোয়াকর তোমার বানী আমার আছে মনে।

 

 

লেখক: বিপ্লবী আক্তার বিথী

প্রধান শিক্ষক,রাজিবপুর সরকারি মডেল প্রা: বিদ্যালয়, কুড়িগ্রাম।